রাজকোটে ভারত-ইংল্যান্ড প্রথম টেস্ট ড্র | daily-sun.com

রাজকোটে ভারত-ইংল্যান্ড প্রথম টেস্ট ড্র

ডেইলি সান অনলাইন     ১৩ নভেম্বর, ২০১৬ ১৯:১৫ টাprinter

রাজকোটে ভারত-ইংল্যান্ড প্রথম টেস্ট ড্র

রাজকোটের ভারত-ইংল্যান্ড প্রথম টেস্ট ড্র হলো। ইংল্যান্ডের ৪ সেঞ্চুরির এই ম্যাচে শেষ দিনের শেষ বিকেলে কিন্তু কেঁপেই গিয়েছিল ভারত।

কিন্তু ওভার ছিল কম। ইংলিশ স্পিনারদের মুঠোটা আরো শক্ত হওয়ার আগেই টেস্টের ৫ দিন শেষ হয়ে গেল। ড্র'র স্বস্তি নিয়েই মাঠ ছাড়লো স্বাগতিক ভারত।

 

দেশের মাটিতে কাউকে ছাড় দেয় না ভারত। শেষ সিরিজেই বিরাট কোহলির দল নিউজিল্যান্ডকে হোয়াইটওয়াশ করেছে দেশের মাটিতে। কিন্তু অ্যালিস্টার কুকের দল গেলবার সিরিজ জিতে ফিরেছিল। এবারও প্রথম টেস্টটা তাদের দাপটেই শেষ হলো। রেকর্ড গড়া এক সেঞ্চুরি ম্যাচের শেষ দিনে করেছেন কুক। তাতে ৩ উইকেটে ২৬০ রানে ইনিংস ঘোষণা করে ইংল্যান্ড।

অভিষিক্ত ১৯ বছরের ওপেনার হাসিব হামিদ ৮২ রানের ইনিংস খেলেছেন। ১৩০ রান কুক। ভারত কোনো বিদেশি ক্রিকেটারের সর্বোচ্চ ৫ সেঞ্চুরির রেকর্ড তাতে তার। এটি ব্যক্তিগত ৩০তম সেঞ্চুরি। হাসিব ও কুক ১৮০ রানের জুটি গড়েছেন। ভারতকে জয়ের জন্য বাকি প্রায় দুই সেশনে ৩১০ রানের জয়ের লক্ষ্য দাঁড়ায়। বিপদের চিহ্নও দেখেছে ভারত।

 

এরকম ম্যাচের শেষ দিনে কেউ জেতে না। হিসেবের অন্তত ৪৯ ওভারের ২৫.২ ওভারে ৬ উইকেট দরকার ছিল ইংল্যান্ডের। জিততে ইংলিশ বোলাররা দ্রুত বল করতে শুরু করলেন। শেষ পর্যন্ত ৫২.৩ ওভার বল করলেন। কিন্তু অধিনায়ক বিরাট কোহলি ও রবিচন্দ্রন অশ্বিন ১৪.২ ওভার ব্যাট করলেন। বেশ কিছুদিন ধরে টেস্ট বাঁচানোর এমন সামান্য পরীক্ষার মুখেও পড়েন না কোহলিরা। এবার পড়লেন। বল দ্রুত বোলারের কাছে ফেরৎ পাঠালেও বাউন্ডারি মেরে আরেকটু সময় নষ্ট করার চেষ্টায় ছিলেন কোহলি। ৯৮ বল খেলে ৪৯ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি। অশ্বিন ৩২ রান করেন। রবিন্দ্র জাদেজা ৩২ রানেই অপরাজিত থাকেন ৬ বাউন্ডারি মেরে। ৬ উইকেটে ১৭২ রানে যখন ভারত খেলা শেষ হয় তখন।

 

কুক হয়তো লেগ স্পিনার আদিল রশিদকে একটু দেরীতে বল দেওয়ার সিদ্ধান্তে নিজের ওপরই রাগ করতে পারেন খানিকটা। সপ্তম ওভারে বাঁ হাতি স্পিনার জাফর আনসারি আসেন। দশ ওভারে অফ স্পিনার মঈন আলি। কিন্তু আদিল আক্রমণে আসেন ১৫তম ওভারে। ১৭তম ভারতের দ্বিতীয় উইকেটটা পড়ে। একপ্রান্ত ধরেন কোহলি। কিন্তু ৭১ ২৩.৪ ওভারে ৪ উইকেট হারায় ভারত। আদিল নেন এর ২ উইকেট। পরে নিয়েছেন আরো ১টি। ম্যাচে ৭ উইকেট তার। ম্যাচে মঈনের ৩ উইকেট। আর ব্যাট হাতে ১১৭ রান প্রথম ইনিংসে। ম্যান অব দ্য ম্যাচ তাই তিনি। দারুণ এক টেস্ট শেষ করলো ইংল্যান্ড। বাকি ৪ টেস্টের আত্মবিশ্বাস প্রথম ম্যাচ থেকেই তুলে নিল তারা।

 


Top