বাজারের সবচেয়ে স্বাস্থ্যকর পাউরুটি কোনটি? | daily-sun.com

বাজারের সবচেয়ে স্বাস্থ্যকর পাউরুটি কোনটি?

ডেইলি সান অনলাইন     ১৫ জুলাই, ২০১৬ ২০:০৬ টাprinter

বাজারের সবচেয়ে স্বাস্থ্যকর পাউরুটি কোনটি?

সকালের নাস্তায় ভালো বেকারির উন্নতমানের পাউরুটি কে না কিনতে চান। অনেকেই আবার হোমমেড পাউরুটি খোঁজেন। প্লাস্টিক ব্যাগে মোড়ানে ফালি করে কাটা এসব পাউরুটি বেশ কম দামেই মেলে। কিন্তু এগুলোর সবই কি ভালো? আসলে স্বাস্থ্যকর পাউরুটি কেমন হবে? এ প্রসঙ্গে ধারণা দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

১. গমের পাউরুটি 
স্থানীয় বেকারিতেই গমের তৈরি খটখটে শুকনো পাউরুটি মেলে। দেখতে উপাদেয় বলে মনে হয়। আবার উচ্চমানে প্রক্রিয়াজাত করা হয়ে থাকে। এদের ক্যালোরি কমিয়ে স্পঞ্জের মতো নরম করে বানানো হয়, থাকে প্রিজারভেটিভ। যদি বাজারের কোনো পাউরুটিতে গমের কথা লেখা থাকে তবে বুঝে নেবেন, এটা থেকে প্রয়োজনীয় পু্ষ্টি উপাদান সরিয়ে নেওয়া হয়েছে বলে জানান নিউ ইয়র্কের পুষ্টিবিশারদ ক্যারি মোটসউইলার। তারপরও এটি ক্যান্ডিবারের চেয়ে পুষ্টিকর।

২. বিভিন্ন শস্যের সমন্বয় 
এটা বেশ স্বাস্থ্যকর শোনায়। 'মাল্টি-গ্রেইন' পাউরুটিতে খুব পুষ্টিকর কিছু আপনার হাতে তুলে দেওয়া হয় না। কারণ এত সত্যিকার অর্থে শস্য দেওয়া থাকে না। আসলে এতে গ্যারান্টি থাকে না যে একাধিক শস্যদানার সমন্বয়ে এই পাউরুটি বানানো হয়েছে। তবে মাল্টি-গ্রেইন বলতে অন্তত দুইটি শস্য ব্যবহৃত হয়েছে বলে ধরে নিতে পারেন।

৩. হোল-হুইট 
গমে তিন অংশ রয়েছে- জার্ম, এন্ডোস্পার্ম এবং ব্রান। অনেক পাউরুটিতে হোল-হুইট কথাটা লেখা থাকতে পারে। এই পাউরুটি এমন গম থেকে বানানো হয় যাতে তিনটি অংশই রয়েছে। দাবি করা হয়, গমে তিনটি আলাদা অংশ আলাদাভাবে প্রক্রিয়াজাত করে একত্র করা হয়। এরপর সেই ময়দা থেকেই পাউরুটি প্রস্তুত হয়। কিন্তু এই ময়দা বানাতে তিনটি উপাদানকে একত্রিত করে প্রক্রিয়াজাত করা হয় না। গমের ওই তিনটি অংশে পুষ্টি উপাদান সঞ্চিত থাকে। পাউরুটিতে সেই অংশগুলো সঠিকভাবে সংরক্ষিত হয় কিনা তা নিশ্চিন্তে বলা যায় না।

৪. হোল-গ্রেইন 
আগেরটির মতোই। যে পাউরুটি প্যাকেটের গায়ে লেখা রয়েছে 'হোল-গ্রেইন', তাতে বোঝাচ্ছে গমের সঙ্গে বার্লি, রাই বা অন্য শস্যদানার সমন্বয়ে বানানো হয়েছে। অধিকাংশ পাউরুটিতে সামান্য হলেও গম থাকে। অবশ্য বড় বড় বেকারি শুধুমাত্র রাই বা অন্য শস্যের পাউরুটি তৈরি করতে পারে। হোল-গ্রেইনের পাউরুটি খুবই ভালো যদি তা হজম করতে পারেন। যদি না করতে পারেন তবে হোল-হুইট পাউরুটি গ্রহণ করতে পারেন।

যা খুঁজি আমরা :

১. ফাইবার
 হোল-গ্রেইন থেকে যে পাউরুটি বানানো হয় তাতে রয়েছে ফাইবার। এই পাউরুটি খেলে অনেকক্ষণ ক্ষুধা লাগে না।

২. হাউড্রোজেনেটেড তেল
 একে সবাই ট্রান্স ফ্যাট নামেই চেনে। যে খাবারেই ট্রান্স ফ্যাট রয়েছে তাতে অন্যান্য উপাদান সম্পর্কে বিস্তারিত লেখা থাকতে হবে। অর্থাৎ, কেবল পুষ্টি উপাদানই নয়, কি কি উপকরণ ব্যবহৃত হয়েছে তাও লেখা থাকবে প্যাকেটের গায়ে। আমেরিকান নিয়ম তাই বলছে। সূত্র : ফক্স নিউজ


Top