ভারত বন্ধুরাষ্ট্র, নির্বাচনে তাদের সাহায্য প্রয়োজন: বিকল্পধারা | daily-sun.com

ভারত বন্ধুরাষ্ট্র, নির্বাচনে তাদের সাহায্য প্রয়োজন: বিকল্পধারা

ডেইলি সান অনলাইন     ১৯ নভেম্বর, ২০১৮ ১৭:০৪ টাprinter

ভারত বন্ধুরাষ্ট্র, নির্বাচনে তাদের সাহায্য প্রয়োজন: বিকল্পধারা

 

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বৃহত্তম প্রতিবেশি দেশ ভারতের সাহায্যের প্রয়োজন রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিকল্পধারার মহাসচিব মেজর (অব.) আবদুল মান্নান। তিনি বলেন ভারত আমাদের বন্ধুরাষ্ট্র।

নির্বাচনের আগে তাদের সাহায্য প্রয়োজন। সোমবার (১৯ নভেম্বর) দুপুরে বিকল্পধারার চেয়ারম্যানের বাসভবনে বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার হর্ষবর্ধন শিংলার সঙ্গে বৈঠক শেষে ব্রিফিংয়ে তিনি এসব কথা বলেন।


আবদুল মান্নান বলেন, ভারতের সাথে বাংলাদেশের অত্যন্ত সুসম্পর্ক বিদ্যমান। আমরা চাই তাদের সঙ্গে এই সুসম্পর্ক নির্বাচনের পরেও বিদ্যমান থাকুক। নির্বাচনের প্রাক্কালে আমরা চেয়েছিলাম, ভারতের সঙ্গে এ সম্পর্ক আরও উন্নতি হোক। এ সব কিছু নিয়েই আমাদের আলোচনা ছিলো। এজন্য ভারতকে আমরা আমন্ত্রণ জানিয়েছিলাম।


বিকল্পধারার এই নেতা আরো বলেন, ‘আমাদের মূল আলোচনা ছিলো ভারত ও বাংলাদেশের সুসম্পর্ক নিয়ে। ’


বৈঠকে বি. চৌধুরী ছাড়াও বিকল্পধারার মহাসচিব মেজর (অব.) আবদুল মান্নান, বি. চৌধুরীর পররাষ্ট্র বিষয়ক উপদেষ্টা ও প্রেসিডিয়াম সদস্য শমসের মবিন চৌধুরী বীরবিক্রম, যুক্তফ্রন্টের মুখপাত্র ও বিকল্পধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য মাহী বি. চৌধুরী উপস্থিত ছিলেন।


ব্রিফিংয়ে শমসের মবিন চৌধুরী বীরবিক্রম বলেন, বৈঠকে আমরা অসাম্প্রদায়িক রাজনীতিতে বিশ্বাস করি এবং মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের শক্তি বলে তাদেরকে জানিয়েছি। এটার ধারবাহিকতা আমরা বজায় রাখবো।


তিনি আরো বলেন, নতুন প্রজন্মের জন্য নতুনত্ব ও ব্যতিক্রমী রাজনীতির কথা আমরা বলেছি।


ব্রিফিংয়ে মাহি বি চৌধুরী বলেন, বিকল্পধারা রাজনীতিতে একটি নিউ ইলিমেন্ট। আদর্শিক, গণতান্ত্রিক অবস্থানে থেকে আমরা গণতন্ত্র রক্ষার স্বার্থে মহাজোটে যাওয়ার প্রক্রিয়ায় রয়েছি।  


তিনি বলেন, তরুণ প্রজন্মের জন্য নতুনত্ব কী তার বেশ কিছু পরিকল্পনা নিয়ে মহাজোটের সাথে আমাদের বৈঠক হবে এ সপ্তাহে।


এর আগে হর্ষবর্ধন শিংলা যুক্তফ্রন্টের চেয়ারম্যান ও বিকল্পধারার প্রেসিডেন্ট সাবেক রাষ্ট্রপতি অধ্যাপক এ.কিউ.এম বদরুদ্দোজা চৌধুরীর বাসায় যান বেলা ১টা ৫ মিনিটের দিকে। বিকল্পধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য মাহী বি. চৌধুরী তাকে স্বাগত জানান। বেলা ২টা ৫৩ মিনিটের দিকে বি চৌধুরীর বাড়ি থেকে বের হন হর্ষবর্ধন।


নির্বাচন প্রসঙ্গে হর্ষবর্ধন শ্রিংলা বলেন, নির্বাচন বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়। এটা নিয়ে আমাদের কোনো মন্তব্য নেই।

 


Top