টাঙ্গাইল ও ময়মনসিংহে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত দুই | daily-sun.com

টাঙ্গাইল ও ময়মনসিংহে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত দুই

ডেইলি সান অনলাইন     ১৫ অক্টোবর, ২০১৮ ১১:০৬ টাprinter

টাঙ্গাইল ও ময়মনসিংহে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত দুই

 

টাঙ্গাইলে র‌্যাবের সঙ্গে তথাকথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ পূর্ববাংলা কমিউনিস্ট পার্টির (লাল পতাকা) সভাপতি শরিফ ফরহাদ নিহত হয়েছেন। এছাড়া ময়মনসিংহে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী পায়েল (২৯) নিহত হয়েছেন।

এ ঘটনায় আহত হয়েছেন জাকির হোসেন নামে এক কনস্টেবল। রবিবার (১৪ অক্টোবর) দিবাগত রাত ১টা থেকে আড়াইটার মধ্যে এ পৃথক ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটে।


টাঙ্গাইল: টাঙ্গাইল র‌্যাব-১২ সিপিসি ৩-এর কোম্পানি কমান্ডার রবিউল ইসলাম গণমাধ্যমকে জানান, নিষিদ্ধ সংগঠন পূর্ব বাংলা কমিউনিস্ট পার্টির (লাল পতাকা) বেশ কয়েকজন চরমপন্থী নাশকতার পরিকল্পনায় বৈঠক করছে, এমন সংবাদের ভিত্তিতে সদর উপজেলার দাইন্যা মধ্যপাড়া এলাকায় অভিযান চালানো হয়। এ সময় তারা র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। র‌্যাবও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায়। সে সময় এক চরমপন্থি গুলিবিদ্ধ হয় ও অন্য চরমপন্থিরা পালিয়ে যায়। পরে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ওই চরমপন্থিকে উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।  


রবিবার সোয়া ২টার দিকে টাঙ্গাইল সদর উপজেলার দাইন্যা মধ্যপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি পিস্তল ও চার রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।


ওই ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় র‌্যাবের দুই সদস্য আহত হয়েছেন। তাদেরকে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।  


ময়মনসিংহ: জেলা গায়েন্দা পুলিশের (ডিবি) ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ কামাল আকন্দ গণমাধ্যমকে জানান, সদর উপজেলার আকুয়া দরগাপাড়া এলাকায় মাদকবিরোধী অভিযান পরিচালনাকালে অজ্ঞাত পরিচয় ছয় থেকে সাতজন মাদক ব্যবসায়ী পুলিশকে লক্ষ্য করে অতর্কিতভাবে গুলিবর্ষণ ও আক্রমণ করে। এসময় পুলিশও পাল্টা গুলি ছুড়লে মাদক ব্যবসায়ীরা পালিয়ে যায়। তবে ঘটনাস্থল থেকে পায়েলকে (২৯) গুলিবিদ্ধ আহত অবস্থায় পাওয়া যায়। পরে চিকিৎসার জন্য তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।  


রবিবার দিনগত রাত সোয়া ১টার দিকে সদর উপজেলার আকুয়া দরগাপাড়া খালপাড় সংলগ্ন একটি ইটভাটার সামনে পাকা সড়কের পাশে এ ঘটনা ঘটে।


‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় আহত হয়েছেন জাকির হোসেন নামে এক কনস্টেবল। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ১শ পিস ইয়াবা ও ১শ গ্রাম হেরোইন উদ্ধার করেছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।


শাহ কামাল আকন্দ জানান, নিহত পায়েল আটটি মাদক মামলা, চাঁদাবাজিসহ মোট ১১টি মামলার আসামি। শহরের মাদক জোন হিসেবে পরিচিত পুরোহিতপাড়া এলাকার জালালের ছেলে এই পায়েল।

 


Top