মাতৃত্ব নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য ইমরান খানের | daily-sun.com

মাতৃত্ব নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য ইমরান খানের

ডেইলি সান অনলাইন     ১৮ জুন, ২০১৮ ১৯:১৬ টাprinter

মাতৃত্ব নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য ইমরান খানের

ফের বিতর্কে জড়ালেন পাকিস্তানের প্রাক্তন ক্রিকেটার এবং তেহরিক–ই–ইনসাফ দলের প্রধান ইমরান খান। রবিবার পাকিস্তানের এক প্রথম সারির সংবাদমাধ্যমে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে ইমরান বলেন, ‘‌শিশুর কাছে মায়ের ভূমিকা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।

শিশু সবথেকে বেশি প্রভাবিত হয় মাকে দেখে। পাশ্চাত্যের নারীবাদকে একেবারেই পছন্দ করি না আমি। যা মায়ের ভূমিকাকে অধঃপতনে নিয়ে যায়। ’‌

 

 
ইমরানের এই ইন্টারভিউ টেলিভিশনে সম্প্রচারিত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনা শুরু হয়ে যায়। পাকিস্তানের এক মহিলা সাংবাদিক মার্ভি সিরমেদ ইমরানের এই মন্তব্যের প্রবল বিরোধিতা করে টুইট করেন। সেখানে তিনি লিখেছেন, ‘‌কেউ ইমরানকে বোঝায়নি নারীবাদ কাকে বলে। তার অর্থ কী। এক জন ব্যক্তি কেবল মাত্র নিজের ধারনা নিয়েই নারীবাদ নিয়ে কথা বলছে। ’‌

 

 
আব্বাস নাসির নামে এক ব্যক্তি টুইটে লিখেছেন, ‘‌ইমরানের মন্তব্যেই স্পষ্ট এই নিয়ে তার কোনও ধারনাই নেই।

যা তিনি জানেন না তা নিয়ে কথা বলা অনুচিত। ’‌
মর্তাজা সোলাঙ্গি নামে একজন লিখেছেন, ‘‌নারীবাদ নিয়ে এমন একজন মন্তব্য করছেন যিনি কখনও নিজের মেয়েকে কোনও মর্যাদা দেননি। এমনকী স্বামী হিসেবে যাঁর ভূমিকা একাধিকবার প্রশ্নচিহ্নের মুখে ফেলেছে। অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের উচিত তাঁর সব ডিগ্রি ফিরিয়ে নেওয়া। ’‌

 


পর পর দু’‌বার বিবাহ বিচ্ছেদের পর নিজের আধ্যাত্মিক গুরু বাশরা মানেকাকে বিয়ে করেছেন ইমরান। কয়েকদিন আগেই ইমরানের প্রথম স্ত্রী জ্যামাইমা গোল্ডস্মিথ তাঁর দ্বিতীয় স্ত্রী রেহমা খানের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করার হুমকি দিয়েছেন। রেহমা যে বই লিখেছে তা কিছুতেই তিনি ব্রিটেনে প্রকাশ করতে দিতে চান না। তাঁর দাবি এতে তাঁর ছেলে এবং তাঁর জীবনের গোপনীয়তা রক্ষার অধিকার লঙ্ঘন হবে।  
যদিও প্রকাশের আগেই রেহমার সেই বই অনলাইনে ছড়িয়ে পড়েছে। তাতে ইমরান এবং তাঁর একাধিক সম্পর্ক নিয়ে বিতর্কিত তথ্য দেওয়া রয়েছে।  


Top