মাধ্যমিকের কোন বোর্ডে পাসের হার কত | daily-sun.com

মাধ্যমিকের কোন বোর্ডে পাসের হার কত

ডেইলি সান অনলাইন     ৬ মে, ২০১৮ ১৭:৫৪ টাprinter

মাধ্যমিকের কোন বোর্ডে পাসের হার কত

- আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের উল্লাস; ছবি- কামরুল ইসলাম রতন

 

চলতি বছরের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে। এবার ১০ শিক্ষা বোর্ডে গড় পাসের হার ৭৭ দশমিক ৭৭ শতাংশ।

আর জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ লাখ ১০ হাজার ৬২৯ জন। তবে এবার পাসের হার ২ দশমিক ৫৮ শতাংশ কমেছে। তবে পূর্ণাঙ্গ জিপিএ পাওয়া শিক্ষার্থীর সংখ্যা বেড়েছে ৫ হাজার ৮৬৮ জন।


রবিবার (৬ মে) সকালে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ গণভবনে শেখ হাসিনার হাতে ফলাফলের অনুলিপি হস্তান্তর করেন। এসময় বিভিন্ন শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানরা তার সঙ্গে ছিলেন।


মাধ্যমিকের বিভিন্ন বোর্ডের পাসের খবর তুলে ধরা হলো-

 

কুমিল্লা: মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) পরীক্ষায় কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডে এবার পাশের হার ৮০ দশমিক ৪০ শতাংশ। এ বোর্ড ৩টি বিভাগে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৬ হাজার ৮৬৫ জন শিক্ষার্থী। পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছিল ১ লাখ ৮২ হাজার ৭১১ জন শিক্ষার্থী।


গত বছরের চেয়ে এবার কুমিল্লা বোর্ডের পাশের হার বেড়েছে।

গত বছর এ বোর্ডে পাশের হার ছিল ৫৯ দশমিক ০৩ শতাংশ। এ বোর্ডে এবার ফলাফলে ছেলেরা এগিয়ে রয়েছে। ছেলেদের পাশের হার ৮১ দশমিক ২৯ শতাংশ এবং মেয়েদের পাশের হার ৭৯ দশমিক ৬৯ শতাংশ।


দিনাজপুর: এবার দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের পাসের হার ৭৭ দশমিক ৬২ শতাংশ। যা গত বছরের তুলনায় কম। গত বছর পাসের হার ৮৩ দশমিক ৯৮ শতাংশ। দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মো. তোফাজ্জুর রহমান বলেন, এ বছর দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয় এক লাখ ৮৬ হাজার ৮৬০ জন পরীক্ষার্থী। মোট পাসের হার দাঁড়িয়েছে ৭৭ দশমিক ৬২ শতাংশ। এবার দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডে জিপিএ ৫ পেয়েছে ১০ হাজার ৭৫৫ জন শিক্ষার্থী।


দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের অধীনে আটটি জেলার দুই হাজার ৬১৪টি বিদ্যালয় থেকে ২৬০টি কেন্দ্রের মাধ্যমে এক লাখ ৮৬ হাজার ৮৬০ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেয়। এর মধ্যে ছাত্র ৯৫ হাজার ৮৩৬ জন ও ছাত্রী ৯১ হাজার ২৪ জন। এসব পরীক্ষার্থীর মধ্যে নিয়মিত এক লাখ ৬৪ হাজার ৬২, অনিয়মিত পরীক্ষার্থী ২২ হাজার ৪৭৩ জন ও জিপিএ উন্নয়ন পরীক্ষার্থী ৩২৫ জন অংশ নেয়।


যশোর: এবার যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় গড় পাসের হার ৭৬.৬৪ শতাংশ। যা গত বছরের তুলনায় প্রায় ৩ শতাংশ কম। গত বছর পাসের হার ছিল ৮০.০৪ শতাংশ।


পাসের হার কমলেও এ বছর জিপিএ-৫ পাওয়া শিক্ষার্থীর সংখ্যা বেড়েছে। এবার জিপিএ-৫ পেয়েছে ৯ হাজার ৩৯৫ শিক্ষার্থী। গত বছর এ সংখ্যা ছিল ৬ হাজার ৪৬০।


এ বছর যশোর বোর্ড থেকে ১ লাখ ৮১ হাজার ৫৬ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নেয়। এর মধ্যে ছাত্র ছিল ৮১ হাজার ৮২০ জন ও ছাত্রী ৮১ হাজার ২৩৬ জন।


চট্টগ্রাম: এবার এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় এবার চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডে পাসের হার ৭৫ দশমিক ৫০ শতাংশ। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৮ হাজার ৯৪ জন।


চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের এসএসসি পরীক্ষায় এ বছর ১ হাজার ১০টি বিদ্যালয়ের ১ লাখ ১৮ হাজার ২৯ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেয়। এর মধ্যে ৫৫ হাজার ৪৯৪ জন ছাত্র ও ৬২ হাজার ৫৩৫ জন ছাত্রী। এবার নিয়মিত ১ লাখ ৬ হাজার ১৯৬ জন, অনিয়মিত ১১ হাজার ৭৬৯ জন ও ৬৪ জন মানোন্নয়ন পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে।


চট্টগ্রাম জেলার ৬৮৪টি বিদ্যালয়ে পরীক্ষার্থী ৮৪ হাজার ৬৬১ জন, নগরের ১৭৯টি বিদ্যালয়ে ২৯ হাজার ৯১৭ জন, কক্সবাজারের ১৩৫টি বিদ্যালয়ে ১৫ হাজার ৪৪৩ জন, রাঙামাটির ৮০টি বিদ্যালয়ে ৭ হাজার ২৭০ জন, খাগড়াছড়ির ৭৫টি বিদ্যালয়ে ৭ হাজার ৭০৫ জন এবং বান্দরবানের ৩৬টি বিদ্যালয়ে ২ হাজার ৯৫০ জন পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে।


এর মধ্যে বিজ্ঞান বিভাগে অংশ নিয়েছে ২৬ হাজার ৫৪৭ জন পরীক্ষার্থী। ব্যবসা শিক্ষা বিভাগে ৫৭ হাজার ৯০৪ জন ও মানবিক বিভাগে ৩৩ হাজার ৫৭৮ জন পরীক্ষার্থী অংশ নিয়েছে।


বরিশাল: এবার এসএসসিতে বরিশাল বোর্ডে পাসের হার ৭৭ দশমিক ১১ শতাংশ। এরমধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে তিন হাজার ৪৬২ জন শিক্ষার্থী। বরিশাল বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক প্র‌ফেসর মো. আ‌নোয়ারুল আজিম জানান, এ বছর পরীক্ষায় বরিশাল বোর্ড থেকে অংশ নেয় এক লাখ হাজার ৩৯১১ জন। এরমধ্যে ছাত্র ৫১ হাজার ৯১২ জন এবং ছাত্রী ৫১ হাজার ২১২ জন। পাস করেছে ৭৯ হাজার ৫২০ জন, যারমধ্যে ছাত্র ৩৯ হাজার ৫১ জন এবং ছাত্রী ৪০ হাজার ৪৬৯ জন।


বিভাগে পা‌সের হারে এগিয়ে রয়েছে ভোলা জেলা। এছাড়া প্রতিবারের মতো এবারও এ শিক্ষা বোর্ডে ফলাফলে ছেলেদের তুলনায় মেয়েরা পাস ও জিপিএর হারে এগিয়ে।


গত বছর বরিশাল বোর্ডে পাসের হার ছিল ৭৭ দশমিক ২৪ শতাংশ। গত বছরের চেয়ে এবার পাশের হার কমেছে দশমিক ১৩ শতাংশ। ত‌বে জিপিএ-৫ বে‌ড়ে‌ছে এক হাজার ১৭৪ জনের।


রাজশাহী: রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের অধীন অনুষ্ঠিত মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) পীক্ষার ফলফলে এবার পাসের হার ৮৬ দশমিক ০৭ শতাংশ। গত বছর ছিল ৯০ দশমিক ৭০ শতাংশ। সে হিসেবে ফলে পাসের হার কমেছে ৪ দশমিক ৬৩ শতাংশ।


রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক আনোয়ারুল হক প্রমানিক বলেন, গত সাত বছরের মধ্যে এবারই পাসের হার কমেছে। তবে পাসের হার কমলেও জিপিএ-৫ বেড়েছে। এবার রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডের অধীন ২৪৭টি কেন্দ্রে পরীক্ষা গ্রহণ করা হয়েছে।


রাজশাহী মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের সচিব প্রফেসর তরুণ কুমার সরকার বলেন, গত বছর জিপিএ-৫ পেয়েছিল ১৭ হাজার ৩৪৯ জন শিক্ষার্থী। এবার পেয়েছে ১৯ হাজার ৪৯৮ শিক্ষার্থী। অর্থাৎ ২ হাজার ১৪৯ জন বেশি শিক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছে। এবার জিপিএ-৫ শিক্ষার্থীদের মধ্যে ১০ হাজার ১৮ জম ছাত্র ও ৯ হাজার ৪৮০ জন ছাত্রী রয়েছে।


এক বছরের ব্যবধানে রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডে এসএসসি পরীক্ষার্থী বেড়েছে ২৭ হাজার ২১১ জন। এ বছর রাজশাহী বোর্ডের অধীনে বিভাগের আট জেলা থেকে অংশ নিয়েছে ১ লাখ ৯৪ হাজার ৫৪৩ জন পরীক্ষার্থী। গত বছর ছিল এক লাখ ৬৭ হাজার ৩৩২ জন পরীক্ষার্থী।


রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডে এবার এসএসসি পরীক্ষার্থীর মধ্যে এক লাখ ৯৮৫ জন ছেলে ও ৯৩ হাজার ৫৫৮ জন মেয়ে পরীক্ষার্থী ছিল।


সিলেট: এবার সিলেট মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনে চলতি বছরের এসএসসি পরীক্ষায় পাস করেছে ৭০ দশমিক ৪২ শতাংশ শিক্ষার্থী। এই পাসের হার গতবছরের থেকে ৯ দশমিক ৮৪ শতাংশ কম। গতবছর পাসের হার ছিল ৮০ দশমিক ২৬ শতাংশ। তবে এবার সিলেট বোর্ডে বেড়েছে জিপিএ ৫। গত বছর সিলেটে জিপিএ ৫ এসেছে ২ হাজার ৬শ ৬৩ এবং এবছর এসেছে ৩ হাজার ১শ ৯১।


সিলেট শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক কবির আহমেদ জানান, সাধারণ গণিত ও ইংরেজিতে ফলাফল খারাপ করার কারণে এবার পরীক্ষার সার্বিক ফলাফলে পাসের হার কমেছে।


জানা যায়, সিলেট মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনে সিলেটের চার জেলার শতভাগ পাস করা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ২৩। এদিকে ১টি শিক্ষার্থীও পাস করেনি এমন কোনও প্রতিষ্ঠান নেই সিলেট বোর্ডের অধীনে। সিলেট বোর্ডে এবছর এসএসিতে ১ লাখ ৮ হাজার ৯শ’ ২৮জন পরীক্ষার্থী অংশ নিয়ে পাস করেছে ৭৬ হাজার ৭শ’ ১০ জন পরীক্ষার্থী। এবছর সিলেট জেলায় পাসের হার ৭৩.৮০, হবিগঞ্জে ৭০.৩৪, মৌলভীবাজারে ৬৬.৯৯ ও সুনামগঞ্জে ৬৮.৫৩ শতাংশ।


ঢাকা: এবার ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডে এসএসসি পরীক্ষায় পাসের হার ৮১ দশমিক ৪৮ শতাংশ। এর মধ্যে জিপিএ-৫ প্রাপ্তিতে শীর্ষে ঢাকা বোর্ড। এ বোর্ডে ৪১ হাজার ৫৮৫ জন শিক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়েছে। গত বছর ঢাকা বোর্ডে জিপিএ-৫ পেয়েছিল ৪৯ হাজার ৪৮১ জন।

 

কারিগরি শিক্ষা বোর্ড: চলতি বছরের কারিগরি বোর্ডেও পাসের হার কমেছে। এবছর কারিগরিতে পাসের হার ৭১ দশমিক ৯৬ শতাংশ। গত বছর ছিল ৭৮ দশমিক ৬৯ শতাংশ। সে হিসেবে কারিগরিতে পাসের হার কমেছে ৬ দশমিক ৭৩ শতাংশ। কারিগরিতে ১ লাখ ১৪ হাজার ৭৬৯ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেয়। এর মধ্যে পাস করেছে ১৫ লাখ ৭৬ হাজার ১০৪ জন।


মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড: চলতি বছরের দাখিল পরীক্ষায় পাসের হার কমেছে। এবার মাদ্রাসা বোর্ডে পাসের হার ৭০ দশমিক ৮৯ শতাংশ, যা গত বছর পাসের হার ছিল ৭৬ দশমিক ২০ শতাংশ। সে হিসেবে মাদ্রাসা বোর্ডে পাসের হার গত বছরের তুলনায় কমেছে ৫ দশমিক ৩১ শতাংশ। মাদ্রাসা বোর্ডের অধীন দাখিল পরীক্ষায় ২ লাখ ৮৯ হাজার ৭৫২ জন পরীক্ষা অংশ নেয়।

 

 


Top