মেয়েরা জিন্স পরলে হিজড়া সন্তান জন্ম দেবে-অধ্যাপকের দাবি | daily-sun.com

মেয়েরা জিন্স পরলে হিজড়া সন্তান জন্ম দেবে-অধ্যাপকের দাবি

ডেইলি সান অনলাইন     ৫ এপ্রিল, ২০১৮ ১৬:৫৩ টাprinter

মেয়েরা জিন্স পরলে হিজড়া সন্তান জন্ম দেবে-অধ্যাপকের দাবি

মেয়েরা জিনস পরলে ‘হিজড়া’ সন্তান প্রসব করতে পারেন। শুধু জিনসই নয়, যে কোনও পুরুষ পোশাক ব্যবহারেই এমন বিপদ হতে পারে বলে দাবি করেছেন ভারতের কেরলের অধ্যাপক রজিত কুমার।

না, যে সে জায়গায় নয় বোটানির অধ্যাপক রীতিমতো পড়ুয়াদের নিয়ে সচেতনতার ক্লাস করে এমন দাবি করেছেন।

 

 

এখন তো অল্প বয়স থেকেই মেয়েরা জিনস পরেন। পুরুষের পোশাক বলে চিহ্নিত পোশাকও মেয়েরা হামেশাই ব্যবহার করেন। কিন্তু এমন বিপদের কথা তো কেউ বলেনি! কিন্তু কেরলের কাসারাগড়ের অধ্যাপক এমনটাই দাবি করেছেন ছাত্রছাত্রীদের কাছে।

 

 

সংবাদসংস্থা পিটিআই জানিয়েছে, ওই অধ্যাপক বলেছেন, ‘‘যে সব মহিলারা জিনস, শার্ট ইত্যাদি পুরুষ পোশাক পরেন তাঁরা হিজড়া সন্তান প্রসব করেন। ’’ কেরলে তিন লাখেরও বেশি হিজড়া রয়েছে বলেও দাবি করেন তিনি।

 

 

এখানেই থামেননি বোটানির অধ্যাপক। জীবনশৈলী তাঁর বিষয় না হলেও তা নিয়ে অনেক অনেক বিস্ময়কর দাবি করেছেন। সে সব দাবি কতটা বৈজ্ঞানিক তা নিয়েই যথেষ্ট প্রশ্ন রয়েছে।

অথচ নির্দ্বিধায় তিনি সচেতনতা তৈরি করতে বলেছেন, ‘‘যে সব দম্পতির জীবনযাপন নারী, পুরুষ বিভাজন মেনে তাঁরাই শুধু ভাল সন্তানের জন্ম দিতে পারে। ’’ ডক্টর রজিত কুমারের দাবি মতো, অসৎ চরিত্রের বাবা মায়ের সন্তান অটিস্টিক বা সেরিব্রাল পালসির মতো অসুখে ভোগে। ’’

 

 

তবে এটাই প্রথমবার নয়। এমন সব অদ্ভুত ভাবনা আগেও বিভিন্ন সমাবেশে তুলে ধরেছেন রজিত কুমার। এর আগে তিরুঅনন্তপুরমে একটি মেয়েদের কলেজে গিয়েও এমন সব কথা বোঝান তিনি। সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, বিভিন্ন সময়ে মেয়েদের সমালোচনার মুখেও পড়তে হয়েছে রজিত কুমারকে। তবু তিনি দমেননি। তাঁর ‘সচেতনতা সভা’য় মেয়েরা দল বেঁধে বেরিয়ে গেলেও অদম্য অধ্যাপক।

 

 

অতীতে অনেক রাজনৈতিক নেতারা মেয়েদের পোশাক নিয়ে নানা মন্তব্য করেছেন। নির্যাতনের জন্য মেয়েদের পোশাককে দায়ী করতেও দেখা গিয়েছে অনেককে। কিন্তু জিনস প্রসঙ্গে চমকপ্রদ ‘হিজড়া’ তত্ত্ব শুধু রজিত কুমারের।

 


Top