কারা বেশি দুঃস্বপ্ন দেখে, নারী না পুরুষ? | daily-sun.com

কারা বেশি দুঃস্বপ্ন দেখে, নারী না পুরুষ?

ডেইলি সান অনলাইন     ২৪ আগস্ট, ২০১৬ ১৫:৫০ টাprinter

কারা বেশি দুঃস্বপ্ন দেখে, নারী না পুরুষ?

 

নারীরা বেশি দুঃস্বপ্ন দেখে অন্যদিকে পুরুষেরা বেশি দেখে রোমাঞ্চকর স্বপ্ন। পুরুষেরা দুঃস্বপ্ন দেখলেও তা নারীর তুলনায় কম। নারীদের এ দুঃস্বপ্নের তালিকায় রয়েছে অত্যন্ত আবেগগত নানা বিষয়। এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে হিন্দুস্তান টাইমস।


নারীরা যে দুঃস্বপ্ন দেখে সেগুলোর তালিকায় রয়েছে সঙ্গীর সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে নানা বিষয়। সম্পর্ক টানাপোড়ন ও বিশ্বাসভঙ্গের বিষয়টি বারবার উঠে আসে তাদের দুঃস্বপ্নে। আর এদিক দিয়ে পুরুষের তুলনায় নারী এগিয়ে রয়েছে।


পুরুষের স্বপ্ন নারীর মতো সম্পর্ককেন্দ্রীক নয়। গবেষণায় জানা যায়, পুরুষের স্বপ্ন অনেকাংশে রোমাঞ্চকর ও আনন্দময় বিষয় থাকে। এ বিষয়ে গবেষণা করেছেন অ্যান কাটলার। তিনি যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক মনোবিদ। তিনি বলেন, ‘দুঃস্বপ্ন চলে আসে উদ্বেগ থেকে। আর নারীরা উদ্বেগ ও উদ্বেগজনিত নানা সমস্যায় প্রায়ই পুরুষের তুলনায় বেশি ভোগেন।’


গবেষণায় জানা গেছে, নারীদের দুঃস্বপ্নের অনেটাই অংশ জুড়ে থাকে তাদের সঙ্গী তার সঙ্গে প্রতারণা করছে এ ধরনের বিষয়। এছাড়া গবেষণায় দেখা গেছে, নারীদের কয়েকটি সাধারণ দুঃস্বপ্ন হলো দাঁত পড়ে যাওয়া, তাড়া করা ও মাকড়সা দেখা।


নারীদের মাঝে যেসব দুঃস্বপ্ন সবচেয়ে বেশি দেখা যায় সেটি হলো- কেউ তাড়া করছে, যা ৫১ শতাংশ নারীর ক্ষেত্রে দেখা যায়। এছাড়া স্কুলে পড়াশোনা করার বিষয়টিও অনেক নারীর স্বপ্নে চলে আসে যা জানিয়েছেন ৩৮ শতাংশ নারী। এছাড়া প্রস্তুতি ছাড়াই পরীক্ষা কিংবা গুরুত্বপূর্ণ কোনো কাজে নেমে যাওয়ার বিষয়টি ৩৪ শতাংশ নারীর দুঃস্বপ্ন হিসেবে চলে আসে।


পুরুষেরা যেসব স্বপ্ন দেখেন তার মধ্যে রয়েছে আকাশে ওড়া, সুন্দর কোনো অপরিচিতার সঙ্গে দেখা হওয়া কিংবা অর্থ পাওয়া। তবে গবেষকরা জানিয়েছেন, নারীরা তাদের দুঃস্বপ্ন মনে রাখার ক্ষেত্রে পুরুষের তুলনায় পারদর্শী।


প্রায় এক চতুর্থাংশ নারী (২৪ শতাংশ) তাদের প্রতি রাতের স্বপ্ন মনে রাখতে পারেন। পুরুষের ক্ষেত্রে এ হার মাত্র ১৪ শতাংশ। এ বিষয়ে গবেষণাটি দুই হাজার পুরুষ ও নারীর মাঝে পরিচালিত হয়। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অ্যারাইজোনা রাজ্যের একটি প্রতিষ্ঠানের উদ্যোগে এ গবেষণা করা হয়।

 


Top