৭ কলেজ অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে শিক্ষার্থীদের অবস্থান, যান চলাচল বন্ধ | daily-sun.com

৭ কলেজ অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে শিক্ষার্থীদের অবস্থান, যান চলাচল বন্ধ

ডেইলি সান অনলাইন     ১৪ জানুয়ারী, ২০১৮ ১৫:৫৩ টাprinter

৭ কলেজ অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে শিক্ষার্থীদের অবস্থান, যান চলাচল বন্ধ

 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় অধিভুক্ত ৭ কলেজের অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়টির শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ অব্যাহত রয়েছে। রবিবার (১৪ জানুয়ারি) সকাল থেকে শুরু হওয়া এ বিক্ষোভ এখনো চলছে।

বন্ধ করে দেয়া হয়েছে টিএসসির সামনের যান চলাচল।


এর আগে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে কয়েক শ’ শিক্ষার্থী জড়ো হয়ে বিক্ষোভ শুরু করে। এরপর মিছিল সহকারে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করে। এক পর্যায়ে উপাচার্য অধ্যাপক মো. আখতারুজ্জামান শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলতে আসেন। তিনি শিক্ষার্থীদের আন্দোলন থেকে সরে আসার অনুরোধ করেন।


তিনি বলেন, সাত কলেজকে আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত অন্য ১০৪টি কলেজের মতোই বিবেচনা করে থাকি। এখানে অন্য কোনো সুযোগ সুবিধা পাওয়ার সুযোগ নেই ৭ কলেজের শিক্ষার্থীদের। আমাদের অধিভুক্ত অন্যান্য কলেজের মতো ৭ কলেজ চলবে। আর তারা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইডেন্টিটি ব্যবহার করতে পারবে না।


তবে শিক্ষার্থীরা উপাচার্যের আশ্বাস আশ্বস্ত না হয়ে বিক্ষোভ অব্যাহত রাখার ঘোষণা দেয়। প্রয়োজনে আরও কঠোর কর্মসূচিও দিতে বাধ্য হবে বলে ঘোষণা করে তারা। এক পর্যায়ে তারা টিএসসির রাজু ভাস্কর্যের সামনে অবস্থান নেয়। বন্ধ করে দেয়া হয় চার পাশের সড়করে যান চলাচল। যার কারণে টিএসসির আশ পাশে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়।


বিক্ষোভকারীরা অধিভুক্ত সাত কলেজের শিক্ষার্থীদের কারণে ঢাবি শিক্ষার্থীদের পরিচয় সঙ্কটে পড়তে হচ্ছে দাবি করে অবিলম্বে এসব কলেজের অধিভুক্তি বাতিলের দাবি জানিয়েছেন। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছেন তারা।


বিক্ষোভে শিক্ষার্থীরা নানা ধরণের প্ল্যাকার্ড বহন করেন যাতে লেখা ছিল- ‘বাতিল হোক অধিভুক্ত, ঢাবি হোক বহিরাগতমুক্ত’; ‘দাবি মোদের একটাই, ঢাবির কোন শাখা নাই’; ‘এক দফা এক দাবি, অধিভুক্ত মুক্ত ঢাবি’; ‘রাখতে ঢাবির সম্মান, সাত কলেজ বেমানান’ ইত্যাদি।


এর আগে গত বৃহস্পতিবারও তারা একই দাবিতে বিক্ষোভ করেন। বিক্ষোভ, দফায় দফায় মিছিল শেষে ওইদিন উপাচার্যের কার্যালয় ঘেরাও করে প্রায় সহস্রাধিক শিক্ষার্থী।


এদিকে ঢাবি শিক্ষার্থীদের আন্দোলনকে অযৌক্তিক দাবি করে সাত কলেজের শিক্ষার্থীরা ১৫ জানুয়ারি সকাল ১১টায় নিজ নিজ কলেজের সামনে বিক্ষোভ ও অবস্থান কর্মসূচির ডাক দিয়েছে।


উল্লেখ্য, গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে ঢাকা কলেজ, ইডেন মহিলা কলেজ, সরকারি শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ, কবি নজরুল সরকারি কলেজ, বেগম বদরুন্নেসা সরকারি মহিলা কলেজ, মিরপুর সরকারি বাঙলা কলেজ ও সরকারি তিতুমীর কলেজ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত হয়।

 


Top