নির্দোষ প্রমাণিত হয়ে ছাড়া পেলেন অনন্য মামুন | daily-sun.com

নির্দোষ প্রমাণিত হয়ে ছাড়া পেলেন অনন্য মামুন

ডেইলি সান অনলাইন     ১২ জানুয়ারী, ২০১৮ ১৮:১৫ টাprinter

নির্দোষ প্রমাণিত হয়ে ছাড়া পেলেন অনন্য মামুন

অবশেষে নির্দোষ প্রমাণিত হয়ে মালয়েশিয়ান পুলিশ কাস্টোডি থেকে ছাড়া পেলেন বাংলাদেশি চিত্রপরিচালক অনন্য মামুন। শুক্রবার বিকালের একটি ফ্লাইটে ঢাকা ফিরছেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

এ প্রসঙ্গে অনন্য মামুন বলেন, মালয়েশিয়ার পুলিশ আমার বিরুদ্ধে যেসব অভিযোগ এনেছিল সেসব মিথ্যা প্রমাণিত হয়েছে। আমি কোনো অন্যায় করিনি। আমার আমন্ত্রণে যারা মালয়েশিয়া বাংলাদেশি নাইট অনুষ্ঠানে অংশ নিতে গিয়েছিলেন তারা সবাই এরই মধ্যে দেশে ফিরে গেছেন।

 

 

কারণ সবাই বৈধভাবেই মালয়েশিয়া গিয়েছিলেন। সবারই ভিসা ও রিটার্ন টিকিট ছিল। সুতরাং অবৈধভাবে মানব পাচারের যে অভিযোগ আমার বিরুদ্ধে দেশের বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় প্রকাশিত হয়েছিল সেসব মিথ্যা বলেই প্রমাণিত হয়েছে। দেশে ফিরে সবকিছুই আমি পরিষ্কারভাবে তুলে ধরব। আমি মনে করি, একটা সফল শো করার কারণে কেউ কেউ আমার বিরুদ্ধে নিজেদের প্রতিহিংসা চরিতার্থ করার চেষ্টা করেছেন এবং আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ দিয়েছিলেন। অনন্য মামুন আরও বলেন, বাংলাদেশ হাইকমিশনও বিষয়টি তদন্ত করে আমার বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ পায়নি।

তাই সেখান থেকেও ক্লিয়ারেন্স দিয়েছে।

 

উল্লেখ্য, গত বছরের ২৩ ডিসেম্বর মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুরে অনুষ্ঠিত বাংলাদেশি নাইট শিরোনামে একটি অনুষ্ঠানের উদ্যোক্তা ছিলেন অনন্য মামুন। তার আমন্ত্রণে দেশের সংস্কৃতি অঙ্গনের একঝাঁক শিল্পী মালয়েশিয়ায় গিয়েছিলেন।

 

 

অনুষ্ঠান শেষে ২৪ ডিসেম্বর থেকে একে একে তারা দেশেও ফিরে এসেছেন। এরই মধ্যে একই দিন মালয়েশিয়ান পুলিশ মামুনের বিরুদ্ধে অবৈধভাবে মানব পাচার করেছেন এ অভিযোগ এনে তাকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করে।

 

 

এ নিয়ে দেশীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হওয়া সংবাদের ওপর ভিত্তি করে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতি তাকে আজীবন নিষিদ্ধও করে। এ প্রসঙ্গে অনন্য মামুন বলেন, যেখানকার ঘটনা সেই দেশ থেকে আমি নির্দোষ প্রমাণিত হয়েছি। তাহলে আমাকে কীভাবে পরিচালক সমিতি নিষিদ্ধ করে সেটা আমার বোধগম্য নয়।

 

 

তাছাড়া তদন্তাধীন একটি বিষয়ের নিষ্পত্তি না হওয়ার আগ পর্যন্ত কেউ কাউকে সাজা দিতে পারে না। এটা আইনের পরিপন্থী। বিষয়টি নিয়ে আমি দেশে ফিরে পরিচালক সমিতির নেতাদের সঙ্গে কথা বলব।

 


Top