অভিজিৎ হত্যায় পুরস্কারঘোষিত এক আসামি গ্রেপ্তার | daily-sun.com

অভিজিৎ হত্যায় পুরস্কারঘোষিত এক আসামি গ্রেপ্তার

ডেইলি সান অনলাইন     ২৫ নভেম্বর, ২০১৭ ১৪:৫৯ টাprinter

অভিজিৎ হত্যায় পুরস্কারঘোষিত এক আসামি গ্রেপ্তার

- মো. আরাফাত রহমান ওরফে সিয়াম ওরফে সাজ্জাদ

 

ব্লগার ও বিজ্ঞানবিষয়ক লেখক অভিজিৎ রায় হত্যা মামলার পুরস্কারঘোষিত এক আসামি মো. আরাফাত রহমান ওরফে সিয়াম ওরফে সাজ্জাদকে গ্রেপ্তার করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিট। শনিবার (২৫ নভেম্বর) দুপুরে ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের উপকমিশনার (ডিসি) মো. মাসুদুর রহমান গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানিয়েছেন।


তিনি জানান, মো. আরাফাত রহমান ওরফে সিয়াম ওরফে সাজ্জাদকে (২৪) নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের অপারেশন শাখার সদস্য। গতকাল শুক্রবার (২৪ নভেম্বর) সাভারের আমিনবাজার এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর আগে তাকে ধরতে এর আগে ২ লাখ টাকা পুরস্কার ঘোষণা করেছিল পুলিশ।


মাসুদুর রহমান বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুক্রবার রাতে সাভারের আমিন বাজারের বরদেশী এলাকা থেকে ঢাকা জেলা ডিবি পুলিশের (উত্তর) সহায়তায় কাউন্টার টেরোরিজম বিভাগ সাজ্জাদকে গ্রেফতার করে। তিনি অভিজিৎ হত্যাকাণ্ড ছাড়াও জুলহাস-তনয়, নিলয় ও দীপন হত্যাকাণ্ডে অংশ নিয়েছিল বলে স্বীকার করেছেন।


প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সাজ্জাদ জানায়, তারা সংগঠনের কথিত বড় ভাইয়ের (মেজর জিয়া) নির্দেশে ও পরিচালনায় এসব হত্যাকাণ্ডে অংশ নেন।


অভিজিৎ হত্যাকাণ্ড সম্পর্কে তিনি পুলিশকে জানান, সে এবং আরও তিনজন মিলে ২০১৫ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি একুশের বইমেলায় লেখক অভিজিৎ রায় ও তার স্ত্রী রাফিদা আহমেদ বন্যাকে কুপিয়ে জখম করেন। তাঁরা দুজনই যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক। আর ওই অভিযানের নেতৃত্বে ছিলেন জঙ্গি মুকুল রানা ওরফে শরীফ, যিনি রাজধানীর খিলগাঁওয়ে পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছেন।


প্রসঙ্গত, অভিজিৎ হত্যা মামলায় গত ৫ নভেম্বর সোহেল ওরফে সাকিব নামে নিষিদ্ধঘোষিত আনসার আল ইসলামের এক সদস্যকে গ্রেফতার করে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট। জিজ্ঞাসাবাদে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে পরে গত ১৮ নভেম্বর তুরাগের বাউনিয়া থেকে মোজাম্মেল হুসাইন ওরফে সায়মনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তারা দু’জনই অভিজিৎ হত্যায় আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

 


Top