মন্দিরে পূজা দিতে গিয়ে বিপাকে ধোনির স্ত্রী | daily-sun.com

মন্দিরে পূজা দিতে গিয়ে বিপাকে ধোনির স্ত্রী

ডেইলি সান অনলাইন     ৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৬:৪৫ টাprinter

মন্দিরে পূজা দিতে গিয়ে বিপাকে ধোনির স্ত্রী

মহেন্দ্র সিংহ ধোনি এখন দেশের বাইরে। তাঁর স্ত্রী সাক্ষী সিংহ রাওয়াত স্বামীর মঙ্গলকামনায় দেউরি মন্দিরে গিয়ে বেশ ঝামেলায় পড়ে গেলেন। ধোনি ও তাঁর পরিবার দেউরি মন্দিরে যান। সেখানে পুজো দেন। কোনও সিরিজ শুরু হওয়ার আগে ভারতের প্রাক্তন অধিনায়ককে দেউরি মন্দিরে পুজো দিতে দেখেছেন রাঁচির মানুষ।

 

দ্বীপরাষ্ট্রের মাটিতে পা রাখার আগে ধোনির ভবিষ্যৎ নিয়ে অনেকেই প্রশ্ন তুলেছিলেন। শ্রীলঙ্কায় ধোনি একের পর এক রেকর্ড গড়ে নিন্দুকদের থামিয়ে দিয়েছেন। এ তো গেল ধোনির কথা! দেশে ধোনির স্ত্রী সাক্ষী দেউরি মন্দিরে গিয়ে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগলেন। বাধ্য হয়ে মন্দিরে ডাকতে হল পুলিশ।

 

ব্যাপারটা কী? হঠাৎ পুলিশের প্রয়োজন হল কেন সাক্ষীর?

ধোনির স্ত্রী শনিবার দেউরি মন্দিরে যখন পা রাখেন, তখন বারোটা বেজে গিয়েছে। মন্দিরে তখন আরতি চলছে। ফলে ঠাকুর দর্শনের জন্য অপেক্ষায় থাকতে হয় সাক্ষীকে। আধ ঘণ্টা অপেক্ষায় ছিলেন সাক্ষী। দাঁড়িয়ে রয়েছেন ধোনির স্ত্রী। তিনিও তো সেলিব্রিটি। তাঁকে সামনে দেখে মন্দিরে ক্রমশ ভিড় বাড়তে থাকে। কিছুক্ষণের মধ্যেই আগের থেকেও বেড়ে যায় ভিড়। তাঁর দিকে তাকিয়ে রয়েছেন মানুষ। সব মিলিয়ে পরিস্থিতি এমন হয় যে সাক্ষী ঘাবড়ে যান। ভিড় নিয়ন্ত্রণ করার জন্য শেষমেশ মন্দিরে ডাকতে হয় পুলিশ। কোনওরকমে পুলিশ ভিড় নিয়ন্ত্রণ করে। সাক্ষীও হাঁফ ছেড়ে বাঁচেন। 

 


Top