সাবধান! নাম পরিবর্তন করেও ব্লু হোয়েল গেম ছড়িয়ে পড়ছে ইন্টারনেটে | daily-sun.com

সাবধান! নাম পরিবর্তন করেও ব্লু হোয়েল গেম ছড়িয়ে পড়ছে ইন্টারনেটে

ডেইলি সান অনলাইন     ২ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ২১:১৭ টাprinter

সাবধান! নাম পরিবর্তন করেও ব্লু হোয়েল গেম ছড়িয়ে পড়ছে ইন্টারনেটে

ব্লু হোয়েল চ্যালেঞ্জ নামের অনলাইন মারণ খেলাটি এখন এক আতঙ্কের নাম। মুম্বইয়ে এক কিশোরের মৃত্যুর সময়েই এই খেলার নাম প্রথম সর্বসমক্ষে আসে। কিন্তু এখন দেশের সর্বত্রই এই খেলার শিকার হওয়া কিশোর-কিশোরীর খোঁজ মিলছে। 

 

বুধবার এই মারণ খেলার এক অ্যাডমিনকে গ্রেফতার করেছে রুশ পুলিশ। জানা গিয়েছিল, এই মেয়েটির কারণেই বহু কিশোর-কিশোরীর জীবনে ঘনিয়ে এসেছে বিপর্যয়। কেবল ওই মেয়েটিই নয়, আরও গ্রেফতারের খবর পাওয়া গিয়েছে। কিন্তু এরা কেউই আসলে এই খেলার প্রধান মস্তিষ্ক নয়। এক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের সূত্রে জানা গিয়েছে, ২১ বছরের এক রাশিয়ান যুবকের মাথা থেকেই প্রথম বেরিয়েছিল এই ভয়ানক খেলার আইডিয়া। ফিলিপ বুডেকিন নামের সেই যুবক আপাতত শ্রীঘরে। রইল তাকে নিয়ে ৫টি তথ্য।

 

• ফিলিপই এই খেলার আবিষ্কারক। জেলে বসে সে জানিয়েছে, এই খেলা সে তৈরি করেছে সমাজকে শোধরাতে। তার মতে যারা এই খেলায় নাম লিখিয়ে প্রাণ খুইয়েছে, তাদের মৃত্যুতে সে দারুণ খুশি হয়েছে।

   

• ফিলিপকে গ্রেফতার করা হয়েছিল ১৬ জন পড়ুয়াকে এই খেলায় যোগ দিতে বাধ্য করে আত্মহননের পথে টেনে আনার জন্য। সে পুলিশের কাছে নিজের দোষ স্বীকারও করে নিয়েছে।

 

• ফিলিপ এখন রয়েছে সেন্ট পিটার্সবার্গের ক্রেস্টি জেলে। 

 

• জেলে বসেই ফিলিপ পাচ্ছে একের পর এক প্রেমপত্র! জানা যাচ্ছে, অনেক মেয়েই নিজেদের ঠিকানা পর্যন্ত পাঠিয়ে দিচ্ছে ফিলিপকে। মনোবিদদের বক্তব্য, জীবনে কারও কাছ থেকেই যে মেয়েরা ভালবাসা পায়নি, তারাই ফিলিপকে চিঠি লেখে। কারণ ফিলিপ অন্তত তাদের ‘পাত্তা’ দিয়েছে। 

 

• ২০১৩ সালে এই খেলা প্রথম শুরু হয়। এখন ফিলিপ শ্রীঘরে বন্দি থাকলেও, খেলাটি ছড়িয়ে পড়ছে। এমনকী, ব্লু হোয়েল নাম ছাড়াও অন্য নামে এই খেলাটি সারা পৃথিবীর কিশোর-কিশোরীদের কাছে মৃত্যুমুখী ফাঁদ হয়ে উঠেছে।

 


Top