কুলভূষণ যাদবের ফাঁসির আদেশ আপাতত স্থগিত | daily-sun.com

কুলভূষণ যাদবের ফাঁসির আদেশ আপাতত স্থগিত

ডেইলি সান অনলাইন     ১৮ মে, ২০১৭ ১৭:২৪ টাprinter

কুলভূষণ যাদবের ফাঁসির আদেশ আপাতত স্থগিত

 

আন্তর্জাতিক আদালতে জোর ধাক্কা খেল পাকিস্তান। কুলভূষণ যাদবের ফাঁসির আদেশ আপাতত স্থগিত করে দিলেন বিচারকরা। আন্তর্জাতিক আদালতে মামলার নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত এই ফাঁসির আদেশ পালন করা যাবে না। আদালত জানায় ভারতের করা আবেদন আন্তর্জাতিক আদালতের এক্তিয়ারে আসে। দুই দেশের মধ্যে কুলভূষণের গ্রেফতার ও বিচার নিয়ে একটি বিবাদ রয়েছে। পাকিস্তানের উচিত ছিল কুলভূষণকে গ্রেফতারের পরে ভারতীয় দূতাবাসের কাছে জানানো এবং কর্মীদের দেখা করতে দেওয়া উচিত ছিল। যা আসলে জানানো হয়নি বলেই মনে করে আদালত।  পাকিস্তানের যুক্তি খারিজ করে দিয়ে আদালত বলে, ভিয়েনা কনভেনশনের প্রোটোকল মেনেই কুলভূষণের সঙ্গে ভারতীয় দূতাবাসের কর্মীদের দেখা করতে দেওয়া উচিত ছিল।

 

৪৬ বছর পরে পাকিস্তানকে আন্তর্জাতিক আদালতে নিয়ে গিয়েছিল ভারত। আদালতে ভারতের আবেদনের মূল বিষয়বস্তু ছিল, কোনও দেশের নাগরিকের সঙ্গে দূতাবাসের যোগাযোগ নিয়ে ভিয়েনা কনভেনশনের যে প্রোটোকল রয়েছে, তা লঙ্ঘন করেছে পাকিস্তান। ভারতের যুক্তি বিশ্বাসযোগ্য বলে জানিয়ে দেন বিচারকরা।

 

ভারতীয় নৌবাহিনীর প্রাক্তন অফিসার কুলভূষণ যাদবকে গুপ্তচর হিসেবে কাজ করার অভিযোগে ফাঁসির আদেশ দেয় পাকিস্তানের সেনা আদালত। এর বিরুদ্ধে স্থগিতাদেশ চেয়ে আন্তর্জাতিক আদালতে যায় ভারত। বৃহস্পতিবার নেদারল্যান্ডসের হেগে স্থানীয় সময় দুপুর ১২টায় এই রায় ঘোষণা করে ১১ সদস্যের আন্তর্জাতিক আদালত। 

 

কুলভূষণকে গ্রেফতার করার পরে তাঁর সঙ্গে ভারতীয় দূতাবাসের কোনও কর্মীকে দেখা করতে দেয়নি পাকিস্তান। এটি ভিয়েনা কনভেনশনের পরিপন্থী। পাকিস্তান সরকারের কাছে অন্তত ১৬টি আবেদন পাঠিয়েছেল ভারত। একটিও গ্রাহ্য করেনি নওয়াজ শরিফ সরকার।

 

যদিও পাকিস্তান বলেছিল, কুলভূষণকে গ্রেফতারের সঙ্গে পাকিস্তানের জাতীয় সুরক্ষার প্রশ্ন জড়িত। ফলে এখানে কনভেনশনের প্রোটোকল খাটে না। কুলভূষণকে বালুচিস্তান থেকে গ্রেফতার করা হয়েছিল। সেখানে পাকিস্তানের মাটিতে তিনি গুপ্তচর হিসেবে কাজ করছিলেন। এছাড়াও পাকিস্তানের দাবি ছিল তারা একটি ঘোযণাপত্রে জাতীয় সুরক্ষার প্রশ্নটি ভিয়েনা কনভেনশনের বাইরে রেখেছিল। তাই এই মামলা দাঁড়ায় না।

আন্তর্জাতিক আদালত অবশ্য এই পাকিস্তানের এই যুক্তি খারিজ করে দেয়।  

 

সূত্রঃ এবেলা 


Top