প্যারিসে হামলা: আইএসের দায় স্বীকার | daily-sun.com

প্যারিসে হামলা: আইএসের দায় স্বীকার

ডেইলি সান অনলাইন     ২১ এপ্রিল, ২০১৭ ১০:৫৬ টাprinter

প্যারিসে হামলা: আইএসের দায় স্বীকার

 

ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে হামলার দায় স্বীকার করেছে জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস)। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়। আইএসের কথিত বার্তা সংস্থা আমাক এজেন্সিতে একাধিক ভাষায় হামলার দায় স্বীকার করা হয়েছে। 


আইএসের ভাষ্যে, আবু ইউসুফ আল-বেলজিকি নামে তাদের এক 'যোদ্ধা' এ হামলা চালিয়েছে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র পিয়েরে হেনরি ব্রানডেটও জানিয়েছেন, প্রাথমিকভাবে এটি আইএস জঙ্গিদের কাজ বলে তাদের ধারণা। 


গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে প্যারিসের কেন্দ্রস্থলে বন্দুকধারীর গুলিতে এক পুলিশ কর্মকর্তা নিহত হন। আহত হন দুজন। পুলিশ বলছে, নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে সন্দেহভাজন বন্দুকধারী নিহত হয়েছেন। 


হামলার ঘটনাকে কাপুরুষোচিত হত্যাকাণ্ড বলে বর্ণনা করেছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওঁলাদ। ওঁলাদ বলেছেন, এই হামলা সন্ত্রাসবাদের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট বলে তাঁর কাছে প্রতীয়মান হয়েছে। পুলিশও বলছে, এটা সন্ত্রাসী হামলা বলে তারা সন্দেহ করছে। হামলার পর আইএস দাবি করে, তাদের এক যোদ্ধা প্যারিসে হামলা চালিয়েছে।


ফরাসি প্রসিকিউটর ফ্রাঁসোয়া ময়াঁ বলেন, সন্দেহভাজন হামলাকারীকে চিহ্নিত করা হয়েছে। হামলার ঘটনায় তার সঙ্গে আর কেউ ছিল কি না, তা খতিয়ে দেখছেন তদন্তকারীরা। হামলার পর ঘটনাস্থল দ্য চ্যাম্পস এলিসি বন্ধ করে দেয় পুলিশ। ঘটনাস্থলের আকাশে হেলিকপ্টার চক্কর দেয়। সবাইকে সরে যেতে বলা হয়। ফ্রান্সে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের দুদিন আগে প্যারিসে হামলার ঘটনা ঘটল। 


বার্তা সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, ২০১৫ সাল থেকে সন্ত্রাসী হামলায় ফ্রান্সে অন্তত ২৩৮ জন নিহত হয়েছে। আর বেশিরভাগ ক্ষেত্রে জঙ্গিগোষ্ঠী আইএস হামলার দায় স্বীকার করেছে। তবে বৃহস্পতিবার রাতের হামলা আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন ঘিরে 'ইসলামী জঙ্গিবাদ' দেশটির প্রধান ইস্যু হয়ে দাঁড়িয়েছে।


ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওলাঁন্দ এটিকে 'সন্ত্রাসী হামলা' উল্লেখ করেছেন। হামলার পরপরই তিনি দেশটির প্রধানমন্ত্রী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে সংকট নিরসনে কথা বলেছেন। প্রেসিডেন্ট জনগণের নিরাপত্তায় আইনশৃংখলা বাহিনীর প্রতি পূর্ণ সমর্থন দিয়েছেন। একই সঙ্গে নিহত পুলিশ সদস্যের প্রতি যথাযথ সন্মান জানানোর ঘোষণা দিয়েছেন তিনি। এছাড়া ফ্রাঁসোয়া ওলাঁন্দ শুক্রবার মন্ত্রিসভার এক জরুরি বৈঠক আহ্বান করেছেন।


হামলার ঘটনায় নিরাপত্তা বাহিনীর প্রতি সন্মান জানিয়ে ১১ জন প্রেসিডেন্ট প্রার্থী রোববার হতে যাওয়া নির্বাচনের প্রচারণা বন্ধের ঘোষণা দিয়েছেন।


এদিকে, তদন্ত কর্মকর্তা ফ্রাঁসোয়া মলিনস সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, হামলাকারীর পরিচয় তারা নিশ্চিত হয়েছেন। তবে এখনই তা প্রকাশ করা হচ্ছে না। আরও যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে।

 


-->
Top