৭৩ বছর বয়সে অলিম্পিক পদক জয়! | daily-sun.com

৭৩ বছর বয়সে অলিম্পিক পদক জয়!

ডেইলি সান অনলাইন     ৬ আগস্ট, ২০১৬ ১৭:০৪ টাprinter

৭৩ বছর বয়সে অলিম্পিক পদক জয়!

 

খেলাধুলার নির্দিষ্ট একটি বয়স থাকে। সব অ্যাথলেটই এর পর যান অবসরে। কিন্তু কিছু অ্যাথলেট আছেন যারা হার মানেন না। অলিম্পিক গেমসও দেখেছে এমন অদম্য অনেক অ্যাথলেটকে। চলমান রিও অলিম্পিক গেমসও দেখছে। তবে জানেন কি ৭৩ বছর বয়সেও 'দ্য গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ' অলিম্পিকে পদক জেতা যায়!

 

জন কোপলে ছিলেন বৃটিশ শিল্পি। আঁকিয়ে। তো ঘরেই ১৯৪৮ লন্ডন অলিম্পিক গেমসে প্রতিযোগিতা করার সময় তার বয়স ৭৩! ১৯১২ থেকে ১৯৪৮ অলিম্পিক পর্যন্ত গেমসে ছিল আর্ট প্রতিযোগিতা। লন্ডনে এই প্রতিযোগিতায় রূপা জিতে সবচেয়ে বেশি বয়সে অলিম্পিক পদক জয়ের রেকর্ড গড়েন জন। এর দুই বছর পর তিনি মারা যান।

 

 জন ৭৩ বছর বয়সে অলিম্পিকে অংশ নিলেও সুইডেনের অস্কার সোয়াহনকে ধরা হয় অলিম্পিকের ইতিহাসের সর্বজ্যেষ্ঠ অলিম্পিয়ান ও সবচেয়ে বেশি বয়সে পদক জেতা অ্যাথলেট। কারণ, তিনি শুটিংয়ে অংশ নিয়েছিলেন। যা নিয়মিত ইভেন্ট। আর আর্ট তা নয়। এটা খেলার মধ্যেও পদে না। অস্কার ধরে রেখেছেন সবচেয়ে বেশি বয়সে অলিম্পিকের সোনা জয়ের রেকর্ডও।

 

 ১৯১২ স্টকহোম গেমসে ৬৪ বছর ২৮০ দিন বয়সে সোনা জিতেছিলেন তিনি। এর আট বছর পর ৭২ বছর ২৮১ দিন বয়সে অলিম্পিকে অংশ নিয়ে সর্বজ্যেষ্ঠ অলিম্পিয়ান হন অস্কার। সেবার রুপা জিতে সর্বজ্যেষ্ঠ অলিম্পিক পদক জয়ীও হন।   

 

অস্কার ভেঙেছিলেন আমেরিকান তীরন্দাজ (আর্চার) গ্যালেন কার্টার স্পেন্সারের সবচেয়ে বেশি বয়সে অলম্পিকের সোনা জয়ের রেকর্ড। ১৯০৪ সেন্ট লুইস গেমসে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন তিনি। তখন তার বয়স ৬৪ বছর। অস্কারের চেয়ে ৯ মাস কম।

 

সবচেয়ে বেশি বয়সে অলিম্পিক পদক জেতা নারী অ্যাথলেটকে গত ১১২ বছরে চ্যালেঞ্জ জানাতে পারেননি কেউ। আমেরিকান আর্চার লিডা পেটন 'এলিজা' পোলোক ১৯০৪ সেন্ট লুইস গেমসে জিতেছিলেন পদক। ঈগলচক্ষু তীরন্দাজের বয়স তখন ৬৩ বছর ৩৩৩ দিন। এককের বোঞ্জ ও দলগত সোনা জিতেছিলেন তিনি। তাই সবচেয়ে বেশি বয়সে অলিম্পিকের সোনা জয়ের রেকর্ড হিসেবে আসে সিবিল 'কুইনি' নিউয়ালের নাম। বৃটিশ তীরন্দাজ ১৯০৮ লন্ডন গেমসে জিতেছিলেন সোনা। তখন তিনি ৫৩ বছর ২৭৫ দিন বয়সের। 


Top