৭২ বছর বয়সেও অলিম্পিক প্রতিযোগী! | daily-sun.com

৭২ বছর বয়সেও অলিম্পিক প্রতিযোগী!

ডেইলি সান অনলাইন     ৬ আগস্ট, ২০১৬ ১৬:১১ টাprinter

৭২ বছর বয়সেও অলিম্পিক প্রতিযোগী!

৬১ বছর নিশ্চয়ই খেলাধুলার বয়স না। আবার ১৩ বছরও নয় বিশ্ব মঞ্চে প্রতিযোগিতা করার বয়স। কিন্তু এবারের রিও অলিম্পিকে এমনই ঘটনা ঘটছে। ব্রাজিলের আসরে যেমন আছেন ৬১ বছরের ম্যারি হান্না, তেমন আছেন ১৩ বছরে গৌরিকা সিং। দুজনেই লড়বেন অলিম্পিক পদকের জন্য। ইভেন্ট ভিন্ন। কিন্তু দুই প্রতিযোগীর বয়সের ব্যবধান যখন ৪৮ তখন বিস্ময় তো জাগেই! মনে হয়, বয়স আসলেই কেবল এক সংখ্যা মাত্র!

১৯২০ সালে অলিম্পিক বসেছিল বেলজিয়ামে। সেবার ৭২ বছর ২৯১ দিন বয়সে প্রতিযোগিতা করেছিলেন অস্কার সোয়াহন। শুটিংয়ে নেমেছিলেন সুইডেনের এই ক্রীড়াবিদ। এর ৭ বছর পর তিনি মারা গেলেও এখনো ধরে রেখেছেন অলিম্পিক ইতিহাসের সর্বজ্যেষ্ঠ অ্যাথলেটের রেকর্ড। ম্যারি হান্না তো তারও থেকে ১০ বছরের ছোটো!

অস্ট্রিয়ার ইকুয়েস্ট্রিয়ান আর্থার ভন পনগ্রাজ ৭২ বছর ৪৯ দিনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন অলিম্পিক গেমসে। নাৎসি জার্মানির ১৯৩৬ বার্লিন গেমসে অংশ নিয়েছিলেন তিনি।

কম যাননি ২০১২ লন্ডন অলিম্পিকে অংশ নেওয়া জাপানের হিরোশি হোকেতসু। তখন তার বয়স ৭১। ইকুয়েস্ট্রিয়ান হোকেতসু তখন বলেছিলেন, ''লোকে বলে আমি নাকি অলৌকিক কিছু। আসলে আমি তো সাধারণ এক বুড়ো।"

লন্ডন অলিম্পিকেই অংশ নিয়েছিলেন কানাডার ৬৫ বছরের ইকুয়েস্ট্রিয়ান ইয়ান মিলার। প্রথম অ্যাথলেট হিসেবে দশটি অলিম্পিকে অংশ নিয়েছেন।

নারী অ্যাথলেটদের মধ্যে সর্বজ্যেষ্ঠ অলিম্পিয়ানের রেকর্ডটা লর্না জনস্টোনের। ১৯৭২ মিউনিখ অলিম্পিকে অংশ নিয়েছিলেন এই বৃটিশ ইকুয়েস্ট্রিয়ান। তখন তার বয়স ৭০ বছর! তার কাছাকাছি যেতে পারেননি কোনো নারী অলিম্পিয়ান। ম্যারি হান্নাও তো তার চেয়ে ৯ বছরের ছোটো!

ম্যারি হান্না। অস্ট্রেলিয়ার ইকুয়েস্ট্রিয়ান। এবারের অলিম্পিকের সর্বজ্যেষ্ঠ অ্যাথলেট। ১৯৯৬, ২০০০, ২০০৪ ও ২০১২ অলিম্পিগ গেমসে প্রতিযোগিতা করেছেন। কখনো কোনো পদক জেতা হয়নি। এটি তার পঞ্চম অলিম্পিক। এই বছর বিশ্বকাপেও প্রতিযোগিতা করে এসেছেন তিনি। আর রিওতে গেছেন বয়জ্যেষ্ঠদের প্রতিনিধি হিসেবে! যেন বোঝাতে চান, বয়সটা আসলেই একটা সংখ্যা মাত্র!


Top